In comparison to my personal past partnership, the relationship felt like an aspiration come true for me personally during the time.

In comparison to my personal past partnership, the relationship felt like an aspiration come true for me personally during the time.

In comparison to my personal past partnership, the relationship felt like an aspiration come true for me personally during the time.

He had been good-looking, prominent, untamed, and interesting. As I realized from a common pal from the institution we attended which he got enthusiastic about myself, I happened to be captivated and flattered. We went for frozen dessert on our very own first go out and were indivisible from that time on. Our bodily partnership accelerated in the rate of light.

We both partied tough and analyzed just possible

Having merely got my personal cardio defectively damaged by rejection of my personal first appreciation, behaviors that my personal boyfriend displayed toward myself that we now accept as poor focus and envy were, at the time, reassuring for me.

I happened to be confident he’d never abandon myself the way the latest chap have, while the “seriousness” with the union meant that I had no qualms about getting sexually energetic.

But just like the period passed we started questioning a lot of the options I was creating inside my life. It started when my mom arrived to town for a call. My date and I also invited my mother for lunch at his suite. I could determine my mom experienced sad and unpleasant, and I expected the girl about it as soon as we were by yourself later that night.

She explained she had observed the a large number of bare liquor bottles (we had been underage) together with my personal brush into the bathroom. My mom asked me to chat seriously together with her about my connection using my date, and I did. In exchange, she expressed how much cash she regretted her close records with boys before fulfilling and marrying my dad.

After my personal heart-to-heart using my mother, i really couldn’t move the nagging feeling that this https://datingranking.net/bbwdesire-review/ isn’t the way I desired to feel living.

Hanging out so very hard that we passed away aside just about any sunday, sleeping with men who had beenn’t devoted to myself for life—it simply didn’t line up with the individual I really wished to be.

As I considered my potential future, I expected to have adult responsibilities. I desired to dedicate my personal time for you sustaining a healthy body, meaningful profession, and a faithful relationships with youngsters. I happened to be not at all focused to get those activities I thus profoundly wanted.

I talked to my sweetheart regarding the adjustment i needed to help make to my personal recent traditions. Perhaps not because my personal mother endangered me in any way (she didn’t), but because I didn’t want living I experienced any longer.

We advised your he can make their own selections and that I would still like your, but i did son’t would you like to party any longer. But even more difficult, we advised your i needed to end having sex.

We knew it would be a huge improvement in the union, but I found myself eventually admitting to my self that I’dn’t resided to my own personal principles and wanted to change that.

He mentioned he grasped, and now we resigned ourselves that we might no more communicate similar social lifetime. That part was difficult, but much harder is attempting to keep gender from our very own partnership. Often, during the temperatures of the moment, it can happen anyhow and I also could well be remaining feelings frustrated.

He didn’t display my personal interest in wanting to wait until wedding, so he felt frustrated by dropping the intimacy we once had. The guy appeared to be simply looking forward to us to alter my attention.

We cared seriously pertaining to one another, but we can easilyn’t resolve all of our distinctions. After a few several months, he dumped me. The break up was challenging, as breakups frequently tend to be. But I realized that no more having sex ended up being a large aspect. I found myself unfortunate, without a doubt, but interestingly maybe not heartbroken. Something strong in informed me this wasn’t the person for me.

He had stayed similar, I had altered. I started trying to find one that would convince us to getting my greatest home, are a true lover when it comes to trip.

I didn’t should feel like I became getting a pull once again or perhaps the just one liable

Although I often sensed frustrated, we nevertheless believed I would personally satisfy men which not only trusted my personal beliefs but would keep all of them as their own.

It turns out, my personal gut impulse was actually best. Many years later i did so satisfy men like that, and I also hitched him. All of our love may be the desired become a reality I found myself seeking all along. Perhaps not because it’s great, but because i am aware that individuals really tend to be dedicated to one another and accept both for just who we’re.

এই পোস্টটি সোশাল মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আমাদের ডোনেট করুন

শিশুদের উন্নয়নে অংশিদার হোন
আমাদের সহায়তা করুন

বিকাশ নাম্বার- ০১৭৩৬২১৩৮২৮

মাসব্যাপি অনলাইন কুইজ প্রতিযোগীতা-২০২০ইং

মাসব্যাপি অনলাইন কুইজ প্রতিযোগীতা-২০২০ইং পেতে এখানে ক্লিক করুন ।

অনলাইনে ভোটার রেজিষ্টেশন

অনলাইনে ভোটার রেজিষ্টেশন ফরম পেতে এখানে ক্লিক করুন ।

অনলাইনে সদস্য ফরম

অনলাইনে সদস্য ফরম পেতে এখানে ক্লিক করুন ।

সকল ফরম সমূহ

শিশু সংসদ সদস্য পদে আবেদন ফরম পেতে এখানে ক্লিক করুন ।

নির্বাচনের মনোনয়ন ফরম পেতে এখানে ক্লিক করুন

উপ শিশু সাংসদ সদস্য পদে আবেদন পত্র পেতে এখানে ক্লিক করুন

উপদেষ্টা পদে সম্মতি পত্র পেতে এখানে ক্লিক করুন

ভোটার রেজিঃ ফরম পেতে এখানে ক্লিক করুন

চেয়ারম্যানের পরিচয়

মিস. ফাতিমা মুন্নি। প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান বাংলাদেশ জাতীয় শিশু সংসদ বিএনসিপি। তিনি দেশের অন্যতম একজন শিশু সংগঠক, শিশু গবেষক এবং সম্পাদক। তিনি জনপ্রিয় জাতীয় শিশু কিশোর ম্যাগাজিন কিশোর গোয়েন্দা’র সম্পাদক ও প্রকাশক। এছাড়াও তিনি বিএনসিপির সকল সহযোগী প্রতিষ্ঠানসমূহের প্রতিষ্ঠাতা।১৯৯৬ সালে ৩০ শে মে ঐতিহাসিক কুমিল্লা জেলার বুড়িচং উপজেলার এক মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি বর্তমানে স্বপরিবারে ঢাকার কমলাপুরে বসবাস করেন। তিনি ঐহিয্যবাহী কুমিল্লা ভিক্টরিয়া সরকারী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ থেকে রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিষয়ে অর্নাসে প্রথম শ্রেণীতে উৎতিন্ন হয়ে একই কলেজ থেকে মাষ্টার’স শেষ করে বর্তমানে উচ্চতর ডিগ্রী পিএইসডি অর্জনের জন্য দেশের বাহিরে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।
তিনি ছোট বেলা থেকেই শিশুদের ব্যাপারে খুবই কৌতুহলি এবং আবেগি ছিলেন। তিনি সব সময় শিশুদের উন্নয়ন এবং ভবিষৎতে যেন আজকের শিশুরাই আগামীর পৃথিবীকে সুন্দর ও যুগ উপযুগী সিদ্ধান্ত নিয়ে সঠিক ভাবে পরিচালনা করতে পারে এই নিয়ে চিন্তা করতেন। “আজকের শিশুরাই আগামীর ভবিষৎত” মূলত এই ব্যাক্যটি থেকেই বিএনসিপির জন্ম। মিস. ফাতিমা মুন্নির মতে যদি আজকের শিশুরাই আগামীর ভবিষৎত হয়ে থাকে তবে অবশ্যই তাদের আগামীর জন্য উপযুক্ত করে গড়ে তুলতে হবে এবং অবশ্যই সেই গড়ে উঠার মাধ্যমটি হতে হবে সম্পূর্ন ভিন্ন, কৌতুহলি, যুগ উপযুগী এবং সর্বপরি সর্বজনিন গ্রহণযোগ্য। কি হতে পারে সেই মাধ্যম, এমন চিন্তা, গবেষণা এবং অক্লান্ত প্ররিশ্রমের ফল ই হল আজকের বিএনসিপি। বিএনসিপি শুধুমাত্র একটি সংগঠন নয়, এটি রাষ্ট্র ও সমাজের শুভ, কল্যাণ ও শ্রেয়বোধ উন্নয়ন মূলক প্রতিষ্ঠান। নতুন প্রজন্ম নতুন পৃথিবী চায় তারা এ দেশের ভবিষ্যত নির্মাতা। তাদের রুচি, মেধা ও মূল্যবোধের ওপরই নির্ভর করছে দেশের ভবিষ্যত কতটা উজ্জলতর হবে। নিজেকে উন্নত মানুষ হিসাবে গড়ে তুলতে পারাটাই প্রত্যেকে এক বড় কর্তব্য। তাহলেই তারা তাদের মেধা, শ্রম, শিক্ষা ও রুচি দিয়ে দেশ, মানুষ ও বিশ্বমানবতার কল্যাণে নিজেদের নিয়োজিত করতে পারবে এবং গণতন্ত্র চর্চ্যা, সাহিত্য, শিল্প, সংস্কৃতি, খেলাধুলার মধ্য দিয়েই শিশুরা হয়ে উঠবে আর্দশ নাগরিক হিসাবে। বিএনসিপি নতুন প্রজন্মের মধ্যে এই মানবিক মূল্যবোধ সঞ্চার করতে চায়। এটি মানবিক মূল্যবোধে উজ্জ্বিবিত মানুষের সম্মিলিত হওয়ার, নিজেকে গড়ে তোলার এবং মানবতার কল্যাণে কাজ করার একটি মঞ্চ। “আমরা জয় করব নিজেকে, জয় করব এই দেশকে এই দেশের মানুষকে এই আমাদের অঙ্গিকার” এই শ্লোগান নিয়ে প্রতিষ্ঠিত বিএনসিপি। সারা দেশেই রয়েছে এর বিস্তৃতি। এটি একটি শিশু অধিকার রক্ষা এবং শিশু-কিশোদের নেতৃত্ব বিকাশ ও মানসিক উন্নয়নের লক্ষে সুনাগরিক হিসেবে গড়ে উঠার অন্যতম শ্রেষ্ট মাধ্যম।

“শিশুদের উন্নয়নে অংশিদার হোন
আমাদের সহায়তা করুন
বাংলাদেশ জাতীয় শিশু সংসদ বিএনসিপি
আসুন সবাই শিশুদের উন্নয়ন করি কপি”

ধন্যবাদান্তে
ফাতিমা মুন্নি
প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান
বাংলাদেশ জাতীয় শিশু সংসদ বিএনসিপি